The news is by your side.

মুন্সীগঞ্জে আলুর ট্রলিকে কেন্দ্র করে লাশ হলো জালাল

0

নিজস্ব প্রতিবেদক 

মুন্সীগঞ্জে আলুর ট্রলির সিরিয়াল নিয়ে ককটেল হামলায় মো. জালাল বেপারী (৪৫) নিহত হয়েছে। এতে আরো পাঁচজন আহত হয়েছে। শনিবার বেলা পৌনে ১ টার দিকে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চরাঞ্চলের মোল্লাকান্দি ইউনিয়নের নতুঁন আমঘাটা গ্রামে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। নিহত মো. জালাল বেপারী (৪৫) আমঘাটা গ্রামের মৃত গনি বেপারীর ছেলে।

নিহত মো. জালাল বেপারীর স্বজনদের কান্নার আহাজারি।

আহতরা হলেন, মো. রাকিব (২০), সেকান্দার (৬০), আরিফ (৩০), সলিম বেপারী (৪০) ও স্বপন (৩৫)। আহতদের স্থানীয় স্বাস্থ্য কেন্দ্রে প্রথমিক চিকিসাৎ দেওয়া হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আলু উত্তোলনের পর জমি থেকে রাস্তায় নেবার জন্য দুটি ট্রলি ব্যাবহার করে। এর মধ্যে একটি ট্রলির সিরিয়াল কম হওয়ায় নিহত মো. জালাল বেপারীর সাথে তার ফুফাতো ভাই দেলু বেপারীর বাক-বিতন্ডার এক পর্যায় হাতাহাতি হয়। পরে ঘটনার উত্তেজনা বেড়ে গেলে দেলু বেপারির ও তার লোকজন বালতি ভরে ককটেল নিয়ে নিহত মো. জালাল বেপারীর উপর নিক্ষেপ করে। এতে ককটেল বিস্ফোরণে মো. জালাল বেপারীর মাথার খুলি উড়ে যায়।

ঘটনার পর থেকে হামলাকারীরা বাড়ি তালা লাগিয়ে পলাতক রয়েছে।

এদিকে আহত সেকান্দার দেওয়ান জানান, নিহত জালাল বেপারীর ফুফাতো ভাই দেলু মিজি (৪৫), চাচাতো ভাই মিষ্টার ওরফে কাইল্লা বেপারী (৩৭), একই গ্রামের সেলিম দেওয়ান, খালেক দেওয়ান (৪৬),স্বপন (৩৬), শিপন (২৫ ), রাসেল (২০ ), হারুন (৩৮ ), আলমগীর (৩৫ ), জুয়েল (২৩ ), সজিব (২২) এ হামলা চালায়।

এ জমিতে ককটেল নিক্ষেপ করে মারা হয়েছে নিহত মো. জালাল বেপারীকে। রক্তাত আলুল ক্ষেত।

মুন্সীগঞ্জ অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আফজাল মাহফুজ (অপরাদ ও প্রশাসন) জানান, ঘটনাটি জানতে পেরে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে মো. জালাল বেপারীর ক্ষত-বিক্ষত লাশ উদ্ধার করা করে সদর হাসপাতারে ময়নাতনন্তের জন্য পাছিয়েছি। ঘটনার পর থেকে এর সাথে জড়িতরা পলাতক রয়েছে। তবে এখনো কাউকে আটক করা যায়নি। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। তিনি আরো জানান, আসামী ধরার জন্য আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.